ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ২:৫২ ঢাকা, শুক্রবার  ১৭ই আগস্ট ২০১৮ ইং

ফাইল ফটো

এমপি লিটন আতঙ্কঃ ‘আপনেরা হামার খোঁজ নেবেন’

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে সাংসদ মনজুরুল ইসলাম ওরফে লিটনের ছোড়া গুলিতে আহত শিশু শাহাদাত আজ সোমবার হাসপাতাল ছাড়বে। এ উপলক্ষে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ডাকা হয়েছে গণমাধ্যমকর্মীদের। সাংবাদিক ও হাসপাতালের চিকিৎসকদের নিজবাড়িতে হাসিমুখে দাওয়াত দিয়েছে শাহাদাত।

অনেক দিন পর বাড়ি যেতে পারবে, তাই শাহাদাতের আজ অনেক আনন্দ। সবুজ শার্ট পরে বাড়ি যাচ্ছে সে। কিছুটা ভয়ও অবশ্য আছে। উপস্থিত সাংবাদিকদের শাহাদাত বলে, ‘হামার এমপি যাতে আর কোনো ঘটনা ঘটপার না পারে, সে জন্য আপনেরা হামার খোঁজ নেবেন।’

শাহাদাতের মা সেলিনা বেগম বলেন, অনেক দিন পর বাড়ি যাচ্ছেন। তাই তাঁর ভালো লাগছে। তবে বাড়িতে কতটা নিরাপদে থাকবেন, এ নিয়ে তাঁরা একটু চিন্তিত। বাবা সাজু মিয়ারও মুখে হাসি। ছেলেকে তিনি ফুটবল ও খেলনা গাড়ি কিনে দিয়েছেন।

শাহাদাত এখন কারও সাহায্য ছাড়া ভালোভাবেই হাঁটতে পারছে। অনেক দিন বাঁচতে চায় সে। তাই দোয়া করতে বলল সবাইকে। হাসপাতালের চিকিৎসক ও সেবিকাদের আদরযত্নে সুস্থ হয়ে উঠেছে সে। তাঁদের কাছে আবদারও কম নয়। হাসপাতালের ওয়ার্ড মাস্টার আসাদুজ্জামান তাকে দুটো হরলিকস দিয়েছেন। আরও দুটি হরলিকস চাইল শাহাদাত।

গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জের বাড়ি থেকে ২ অক্টোবর সকালে চাচার সঙ্গে হাঁটতে বেরিয়েছিল স্থানীয় বিদ্যালয়ের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র শাহাদাত হোসেন ওরফে সৌরভ। এ সময় সাংসদ মনজুরুল ইসলাম গুলি ছুড়লে শিশুটির বাঁ পায়ে একটি ও ডান পায়ে দুটি গুলি লাগে। ওই দিনই শিশু শাহাদাতকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে ভর্তি করা হয়।