Press "Enter" to skip to content

ইমিগ্রেশনের গাফিলতিতে পাসপোর্ট ছাড়া ভ্রমণ : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

পাইলট ক্যাপ্টেন ফজল মাহমুদের পাসপোর্ট ছাড়া বিদেশ ভ্রমণ নিয়ে সৃষ্ট ঘটনার বিষয়ে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, এখানে ইমিগ্রেশন পুলিশের গাফিলতি হয়েছে।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমরা জানতে পেরেছি পাইলট ভুল করে পাসপোর্ট নেননি। তবে তার এমন ভুল করা উচিত হয়নি, যেহেতু এটি প্রধানমন্ত্রীর বিমান। ইমিগ্রেশন পুলিশেরও উচিত ছিল পাসপোর্টটি দেখা। তার গাফিলতির কারণে ইমিগ্রেশনের একজন কর্মকর্তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে।’

শনিবার দুপুরে র‌্যাব সদর দফতরে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ সব কথা বলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, পাইলট ভুল করেই এটা করেছেন। বিমানবন্দরে দুই-তিন জায়গায় চেক হয়। তারপরও উনি চলে গেছেন। আমাদের ইমিগ্রেশনে তিনি ফিঙ্গার প্রিন্ট দিয়েছেন। ইমিগ্রেশন পুলিশ জেনারেল ডিক্লারেশন দেখেছেন। পাসপোর্ট দেখতে চাইলে সব সময় পাইলটরা বলেন, পকেটে আছে। তারপরও আমাদের ইমিগ্রেশন পুলিশের গাফিলতির কারণে পুলিশ প্রধান ইতোমধ্যে তাকে সাসপেন্ড করেছেন। এখানে গাফিলতি হয়েছে। তবে আমি বলবো এটা প্রধানমন্ত্রীর বিমান, তাই এই ভুলটা করা পাইলটের উচিত হয়নি।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, আমরা তদন্ত করছি। তদন্তের পর বিস্তারিত আরও জানা যাবে। ঈদের সময় নিরাপত্তার বিষয়ে তিনি বলেন, সারাদেশে নিরাপত্তা ভালো ছিল, দেশের জনগণ সুন্দরভাবে ঈদ উদযাপনে করেছে। নিরাপত্তাবাহিনীর সঙ্গে জনগণের সহযোগিতা ছিল।

ঈদযাত্রায় মানুষের ভোগান্তি কম হয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, রাস্তাঘাট মোটামুটি ক্লিয়ার ছিল। শুধু সিরাজগঞ্জ বাইপাসে একটু সমস্যা ছিল। তারপরও মানুষ সুন্দরভাবে পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদযাপন করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত বুধবার পাসপোর্ট ছাড়াই বিদেশ সফররত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে দেশে ফিরিয়ে আনতে বিমানের বোয়িং ৭৮৭ উড়োজাহাজ নিয়ে যান ক্যাপ্টেন ফজল মাহমুদ। কিন্তু পাসপোর্ট ছাড়া বিদেশ ভ্রমণে যাওয়ায় দোহা আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ক্যাপ্টেন ফজল মাহমুদকে আটকে দেয় কাতার ইমিগ্রেশন।

শেয়ার অপশন:
Don`t copy text!