শীর্ষ মিডিয়া

ব্রেকিং নিউজ

রাত ৯:২৮ ঢাকা, বুধবার  ১৯শে ডিসেম্বর ২০১৮ ইং

সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী
সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

আমি আর অপাত্রে ঘি ঢালতে যাব না : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আগামী নির্বাচনে বিএনপি’র অংশগ্রহণ নিশ্চিত করতে তাঁর ব্যক্তিগত তরফ থেকে কোন রকম উদ্যোগ গ্রহণের সম্ভবনাকে নাকচ করে দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘সংসদীয় গণতন্ত্রের রীতি অনুযায়ী যেভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়, ঠিক সেভাবেই ২০১৮ সালের সংসদ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে এবং নির্বাচনে অংশগ্রহণ প্রত্যেকটি দলেরই কর্তব্য।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আমি আর অপাত্রে ঘি ঢালতে যাব না। আর নির্বাচনও কারো জন্য অপেক্ষা করে থাকবে না।’

তিনি আজ বিকেলে তাঁর সরকারি বাসভবন গণভবনে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক কম্বোডিয়া সফর নিয়ে এই সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হলেও আগামীর সংসদ নির্বাচনে বিএনপি’র অংশগ্রহণ এবং সৌদি আরবের আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর তথ্যানুযায়ী জিয়া পরিবারের প্রায় ৫শ’ কোটি টাকা সেখানকার ধনকুবেরদের ব্যবসায়ে লগ্নীকরণের বিষয়টি নিয়ে সাংবাদিকরা তাঁকে প্রশ্ন করেন। মামলায় সাজাপ্রাপ্ত তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনার বিষয়টিও অনুসন্ধিৎসু সাংবাদিকদের প্রশ্নে ঘুরে ফিরেই স্থান পায়। রোহিঙ্গা শরণার্থীদের দেশে ফিরিয়ে নেয়ার বিষয়ে মিয়ানমারের সঙ্গে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর এবং জেরুজালেমকে ইসরাইলের রাজধানী ঘোষণার মত আন্তর্জাতিক বিষয়গুলোও উঠে আসে সাংবাদিকদের প্রশ্নে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনে বিএনপি’র অংশগ্রহণ সম্পর্কে বলেন, ‘রাজনৈতিক দলগুলোকে তাদের নিজেদেরই সিদ্ধান্ত নিতে হয়, তারা নির্বাচন করবে কি না। তবে, আমার মনে হয় বিএনপি ২০১৪ সালের মত ভুল আর করবে না’- বলেন প্রধানমন্ত্রী।

বিএনপিকে ২০১৪ সালের নির্বাচনে আনতে গিয়ে দলটির চেয়ারপার্সনের কাছ থেকে প্রাপ্ত অশালিন ও অমানবিক আচরণের কথা স্মরণ করে শেখ হাসিনা বলেন, যাদের মধ্যে এতটুকু ভদ্রতা জ্ঞান নেই তাদের সঙ্গে কথা বলার প্রয়োজন মনে করি না।

বেগম জিয়ার ছোট ছেলে আরাফাত রহমান কোকো’র মৃত্যুর পর সহানুভূতি জানাতে গেলে তাঁকে ভবনে প্রবেশ পর্যন্ত করতে না দিয়ে দরজা বন্ধ করে দেয়ার কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেই ফেলেন, তাঁকে পুনরায় তাদের (বিএনপি ও বেগম জিয়া) দরজায় কোন অনুরোধ নিয়ে যাবার মত জুলুম যেন আর করা না হয়। সেইসাথে নির্বাচনে না এসে অতীতের মত যদি বিএনপি কোন ধ্বংসাত্মক কর্মকান্ডে জড়ানোর চেষ্টা করে তাহলে জনগণই তাদের প্রতিরোধ করবে বলেও তিনি বিএনপিকে সতর্ক করে দেন।

সংবাদ সম্মেলনের শুরুতে প্রধানমন্ত্রী তাঁর সাম্প্রতিক কম্বোডিয়া সফরের সাফল্য নিয়ে লিখিত বক্তব্য উপস্থাপন করেন।

আগাম নির্বাচনের সম্ভাবনাকেও নাকচ করে দিয়ে প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের উত্তরে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘দেশে এমন কোন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি যে আমাদের আগাম নির্বাচনে যেতে হবে।’