ব্রেকিং নিউজ

রাত ৯:৩৯ ঢাকা, শুক্রবার  ২১শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

চুমকি
মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি, ফাইল ফটোঃ

আইজিপি পদে নারীকে দেখতে চাই: চুমকি

মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী মেহের আফরোজ চুমকি পুলিশ বাহিনীতে নারীর সংখ্যা আরও বাড়ানোর ওপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন।

তিনি বলেছেন, ‘দেশের মোট জনগোষ্ঠীর অর্ধেকই নারী। সেই তুলনায় বাংলাদেশ পুলিশে নারীর সংখ্যা খুবই অপ্রতুল। পুলিশে নারীর সংখ্যা আরও বৃদ্ধি করা হবে।’

প্রতিমন্ত্রী বলেন, তিনি একজন নারীকে বাংলাদেশ পুলিশের প্রধান হিসেবে (আইজিপি) দেখতে চান।

মেহের আফরোজ চুমকি আজ বুধবার রাজধানীর রাজারবাগ পুলিশ লাইন অডিটরিয়ামে বাংলাদেশ পুলিশ নারী কল্যান সমিতির বার্ষিক সমাবেশ ও আনন্দ মেলায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

পুলিশের ইন্সপেক্টর জেনারেল একেএম শহীদুল হকের স্ত্রী বাংলাদেশ পুলিশ নারী কল্যান সমিতির সভানেত্রী শামসুন নাহারের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীর সহধর্মিনী বেগম লুৎফুল তাহমিনা খাঁন।

লুৎফুল তাহমিনা খাঁন বলেন, বাংলাদেশ পুলিশে দিন দিন নারীর অংশগ্রহন বাড়ছে, যা এদেশের জন্য ভাল দিক।

বর্তমানে জাতিসংঘ শান্তি মিশনে সর্বোচ্চ সংখ্যক বাংলাদেশের নারী পুলিশ কর্মরত রয়েছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, নারীর ক্ষমতায়নে বাংলাদেশ উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি করেছে। আর এ জন্যে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রীকে ইউএন উইমেন প্লানেট ফিফটি ফিফটি পদকে ভূষিত করেছে।

সমাবেশে বাংলাদেশ পুলিশে কর্মরত সদস্যদের প্রায় শতাধিক ছেলে-মেয়েকে শিক্ষা বৃত্তি প্রদান করা হয় এবং সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরষ্কার প্রদান করা হয়। সমাবেশ শেষে পুনাকের সদস্যদের অংশগ্রহণে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পরিবেশিত হয়।