টুইটারে পোস্ট করা একটি ছবিতে সিদ্ধার্থ ধর

আইএসের নতুন প্রোপাগান্ডা প্রধান সিদ্ধার্থ ধর

ইসলামিক স্টেটের সাম্প্রতিক প্রোপাগান্ডা ভিডিও গুলোয় দেখানো প্রধান ব্যক্তির নাম সিদ্ধার্থ ধর, যিনি একজন ব্রিটিশ নাগরিক।

সম্প্রতি ব্রিটেনের পক্ষে গুপ্তচর বৃত্তির অভিযোগ এনে পাঁচজন ব্যক্তিকে হত্যা করে আইএস। সেই ভিডিওতে সিদ্ধার্থ ধরকে দেখা গিয়েছিল।

যদিও এখনো আনুষ্ঠানিকভাবে কিছু জানানো হয়নি। তবে ব্রিটিশ গোয়েন্দা সূত্র জানিয়েছে যে, ওই ব্যক্তি সিদ্ধার্থ ধর বলেই তারা ধারণা করছে।

যুক্তরাজ্যের একটি হিন্দু পরিবারে জন্ম নেয়া মি. ধর পরে ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হন।

সিরিয়ায় যাবার আগে তার বিরুদ্ধে যুক্তরাজ্যের বিভিন্ন মসজিদের সামনে উগ্র বক্তব্য দেয়ার অভিযোগ রয়েছে।

এর আগে আইএসের প্রোপাগান্ডা ভিডিওতে ‘জিহাদি জন’ নামের একজনকে দেখা যেতো, যার আসল নাম মোহাম্মদ এমওয়াজি। তিনিও ছিলেন একজন ব্রিটিশ নাগরিক।

বিমান হামলায় তিনি নিহত হয়েছেন বলে দাবি করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

সিদ্ধার্থ ধর পূর্ব লন্ডনে বসবাস করতেন। আগে হিন্দু ধর্মাবলম্বী থাকলেও পরে তিনি ইসলাম ধর্মে ধর্মান্তরিত হন এবং উগ্রপন্থী গোষ্ঠি আল মুহাজিরুনে যোগ দেন।

তার এখনকার নাম আবু রুমায়শা। সাবেক ব্যবসায়ী এবং চার সন্তানের জনক মি. ধরকে সন্ত্রাসে মদদ দেয়ার অভিযোগে ২০১৪ সালে গ্রেপ্তার করা হয়েছিল।

জামিনে মুক্তি পাওয়ার পর তিনি সিরিয়ায় গিয়ে আইএসে যোগ দেন বলে ধারণা করা হচ্ছে।

তার বোন কণিকা ধর বিবিসিকে বলেছেন, প্রথমবার শুনে মনে তাঁর মনে হয়েছিল, এটা তার ভাইয়েরই কণ্ঠস্বর। তখন তিনি খুবই মর্মাহত হন। যদিও তিনি পুরোপুরি নিশ্চিত নন, এটা সত্যিই তার ভাই কিনা। বিবিসি বাংলা