ব্রেকিং নিউজ

বিকাল ৩:২৯ ঢাকা, সোমবার  ২৪শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

অর্থনৈতিক জবাবদিহিতা নিশ্চিতে আইসিএবি’র দায়িত্ব অনেক: বাণিজ্যমন্ত্রী

বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, সুশাসন ও অর্থনৈতিক জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে ইনস্টিটিউট অফ চার্টার্ড এ্যাকাউন্ট্যান্টস অফ বাংলাদেশের (আইসিএবি) গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে।
তিনি বলেন, বাংলাদেশে এ সেক্টরে প্রচুর দক্ষ জনশক্তি রয়েছে। বিগত দিনের চেয়ে সরকারি ও বেসরকারি সেক্টরে হিসাবের মান অনেক উন্নত হয়েছে।
তোফায়েল আহমেদ আজ বৃহষ্পতিবার আইসিএবি আয়োজিত “এ্যাট্রাকটিং এন্ড রিটেইনিং ফাইন্যান্স পার্সোন্যাল ইন দি বাংলাদেশ পাবলিক সেক্টর” শীর্ষক রাউন্ড টেবিল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ সব কথা বলেন।
আইসিএবি’র প্রেসিডেন্ট কামরুল আবেদিন এফসিএর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কনফেডারেশন অফ এশিয়া এন্ড প্যাসিফিক এ্যাকাউন্ট্যন্ট (সিএপিএ)-এর প্রধান নির্বাহী ব্রিয়ান ব্লোড, পরিচালক আনোয়ার উদ্দিন চৌধুরী।
তোফায়েল আহমেদ বলেন, বাংলাদেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে বেসরকারি সেক্টরের ভূমিকা অনেক। সরকারি ও বেসরকারি সেক্টরে অর্থিক শৃঙ্খলা এসেছে এবং কাজের মান বৃদ্ধি পেয়েছে। দেশ এখন শক্তিশালী অর্থনৈতিক ভিত্তির উপর দাঁড়িয়েছে। বাংলাদেশের অর্থনীতি এগিয়ে যাচ্ছে। এবছর প্রবৃদ্ধি ৬.৮ ভাগ অর্জন করা সম্ভব হবে।
বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশকে সুখী সমৃদ্ধ সোনারবাংলা গড়ে তোলার স্বপ্ন নিয়ে শূন্য হাতে দেশ পরিচালনার দায়িত্বভার গ্রহণ করেছিলেন। জাতির পিতার সে স্বপ্নপুরণ করতে দেওয়া হয়নি। ১৯৭২ সালে বাংলাদেশ ২৫টি পণ্য বিশে^র ৬৮টি দেশে রপ্তানি করে যে বাংলাদেশ আয় করতো মাত্র ৩৪৮ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।
তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকারের দূরদর্শিতা ও সময়োপযোগি সঠিক সিদ্ধান্তের কারনে সেই বাংলাদেশ আজ ৭২৯টি পণ্য পৃথিবীর ১৯৬টি দেশে রপ্তানি করে আয় করছে প্রায় ৩২ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। দেশের ৫০ বছর পূর্তিতে ২০২১ সালে দেশের রপ্তানির লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে ৬০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। শুধুৃ তৈরী পোশাক থেকে আসবে ৫০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার।
তোফায়েল আহমেদ বলেন, সে সময় বাংলাদেশের রিজার্ভ বা রেমিটেন্স ছিল না বললেই চলে, আজ দেশের রেমিটেন্স ১৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার ছাড়িয়ে গেছে এবং রিজার্ভ ২৭ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের বেশি। আমাদের ব্যালেন্স অফ পেমেন্ট পজেটিভ। বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুঁড়ি নয়, সম্ভাবনার দেশ।
পরে বাণিজ্যমন্ত্রী দৈনিক সমকাল আয়োজিত “সমকাল সংলাপ ঃ ৬ দফার ৫০ বছর” অনুষ্ঠানে যোগদান করেন। দৈনিক সমকালের সম্পাদক গোলাম সারওয়ারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন অধ্যাপক রেহমান সোবহান, ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. আ আ স ম আরেফিন সিদ্দিক, কমিউনিস্ট পাটির মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম প্রমুখ।
এরপর মন্ত্রী জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের ১২তম সভায় সভাপত্বি করেন। সভায় ভোক্তার অধিকার প্রতিষ্ঠায় জনসচেতনতা গড়ে তোলার প্রয়োজনীয় কার্যক্রম পরিচালনা এবং আগামী ১৫ মার্চ বিশ^ ভোক্তা অধিকার দিবস উদ্যাপনে দেশব্যাপী বিস্তারিত কর্মসূচি বাস্তবায়নের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।