Sheersha Media

ব্রেকিং নিউজ

রাত ৮:১৯ ঢাকা, বৃহস্পতিবার  ১৫ই নভেম্বর ২০১৮ ইং

মতিয়া চৌধুরী
কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী, ফাইল ফটো

অর্থনীতি ইতিবাচক ধারায় চলছে : কৃষিমন্ত্রী

কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, সম্পদের সঠিক ব্যবহারের ফলে দেশের অর্থনীতি ইতিবাচক ধারায় পরিচালিত হচ্ছে।

আজ সোমবার ২০১৬-১৭ অর্থবছরের সম্পূরক বাজেটের ওপর আলোচনায় অংশ নিয়ে তিনি একথা বলেন।

তিনি বলেন, সরকারের এই ধারা অব্যাহত থাকলে দেশকে ২০২১ সালের মধ্যে একটি মধ্যম আয় এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত সমৃদ্ধ দেশে পরিণত করা সম্ভব।

চলতি অর্থবছরের বাজেটে মোট বরাদ্দ ৩ লাখ ৪০ হাজার ৬০৫ কোটি টাকার মধ্যে ৩ লাখ ১৭ হাজার ৩৭৪ কোটি টাকা খরচ হয়েছে। সংশোধিত বাজেটে এ টাকা চাওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, সামরিক সরকার জিয়াউর রহমানের মতো বর্তমান সরকার যথেচ্ছা খরচ না করে যেখানে যা প্রয়োজন তাই করেছেন। এটাই শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকারের বৈশিষ্ট্য। তিনি জিয়াউর রহমানের মতো বলেন নাই, ‘মানি ইজ নো প্রোবলেম’। তিনি প্রতিটি পয়সা চিন্তা করে খরচ করেন। সরকার ইচ্ছা করলে সব মন্ত্রণালয়ে সব টাকা খরচ করতে পারতো। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর চিন্তা-ভাবনা সেটা নয়। অর্থমন্ত্রী অপ্রয়োজনীয় ব্যয়ের হ্রাস টেনেছেন তবে যেখানে যেটা প্রয়োজন সেটা খরচ করতে কার্পণ্য করেননি।

২৭টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগের জন্য ১৮ হাজার ৩৭০ কোটি ২২ লাখ টাকা অতিরিক্ত মঞ্জুরির দাবি করা হয়েছে উল্লেখ করে তিনি এই ২৭টি মন্ত্রণালয়ের কার্যক্রম তুলে ধরেন। তিনি বলেন, ২৭টি মন্ত্রণালয়ের বরাদ্দ ১ লাখ ১১ হাজার ৮৬০ কোটি ২৪ লাখ টাকা। আর মোট ব্যয় ১ লাখ ৩০ হাজার ২৩০ কোটি ৪৬ লাখ টাকা। অর্থাৎ মঞ্জুরী দাবি ১৮ হাজার ৩৭০ কোটি ২২ লাখ টাকা।

মন্ত্রী বলেন, মঞ্জুরি দাবিগুলো সব যৌক্তিক। দাবিগুলো বিবেচনার যথেষ্ট ক্ষেত্র আছে এবং এগুলো বিবেচনা করা যায়।

সরকারি দলের সদস্য রমেশ চন্দ্র সেন, উপাধ্যক্ষ আব্দুস শহীদ, সরকার দলীয় হুইপ শহীদুজ্জামান, জাতীয় পার্টির নুরুল ইসলাম মিলন, সেলিম উদ্দিন, স্বতন্ত্র সদস্য রুস্তম আলী ফরাজী সম্পূরক বাজেট আলোচনায় অংশ নেন।