ব্রেকিং নিউজ

দুপুর ২:৫৭ ঢাকা, বুধবার  ২৬শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ ইং

ফাইল ফটো

অভুক্ত খালেদা ও কর্মচারীরা

Like & Share করে অন্যকে জানার সুযোগ দিতে পারেন। দ্রুত সংবাদ পেতে sheershamedia.com এর Page এ Like দিয়ে অ্যাক্টিভ থাকতে পারেন।

 

বিএনপি চেয়ারপারসন ২০ দলীয় জোটের নেতা বেগম খালেদা জিয়ার গুলশান কার্যালয়ের খাবার সরবরাহ বন্ধ করে দিয়েছে পুলিশ।
একইসাথে বৃহস্পতিবার থেকে গুলশান কার্যালয়ে সাংবাদিকদের প্রবেশ করতে দিচ্ছেনা পুলিশ। পরপর দুই দফা খাব‍ার প্রবেশ করানোর উদ্যোগ নিলেও পুলিশি বাধায় ফিরে যায়। বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত পুলিশ কোন খাবার কার্যালয়ে প্রবেশ করতে দেয়নি বলে স্টাফরা জানিয়েছেন। জানা গেছে,খাবার না পেয়ে সারারাত  কার্যালয়ের সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা অভুক্ত আছেন। এদের মধ্যে কয়েকজন অসুস্থ্য হয়ে পড়েছেন বলে খবর পাওয়া গেছে।
বুধবার রাত ৮টার দিকে প্রথম দফায় খাবার সরবরাহকারী পিকআপ ভ্যানটি কার্যালয়ের ভিতরে ঢোকার চেষ্টা করলে বাধা দেয় পুলিশ।চালকসহ ভ্যানটিকে আটক করে নিয়ে যায় সাদা পোশাকধারী পুলিশ। ভ্যানে ১২০ প্যাকেট খাবার ও প্রয়োজনীয় পানির বোতল ছিল। দ্বিতীয় দফায় রাত সাড়ে দশটার দিকে পুনরায় কিছু শুকনা খাবার কার্যালয়ের ভেতরে প্রবেশ করানোর চেষ্টা করা হলে তাতেও পুলিশ বাধা দেয়।
বিএনপি চেয়ারপারসনের মিডিয়া উইংয়ের শামসুদ্দিন দিদার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
তিনি জানান, রাতে স্টাফদের খাবার প্রবেশ করতে না দেয়ার খবর শুনে বিএনপি চেয়ারপার্সন তাদের খেজুর ও মুড়ি খেতে দেন।
কার্যালয় সূত্র জানায়, বুধবার রাতে খাবার নিতে বাধা দেওয়ার পর বৃহস্পতিবার সকালে আর খাবার আনা হয়নি। এখন স্টাফরা অভুক্ত অবস্থায় দিন কাটাচ্ছেন। তবে গুলশানে বিএনপি চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যদের কেউ খাবারবাহী ভ্যান ফেরত পাঠানোর কথা স্বীকার করেননি।

এদিকে বৃহস্পতিবার দুপুরে কয়েকজন সাংবাদিক কার্যালয়ে প্রবেশ করতে চাইলে পুলিশ তাদের বাধা দেন।
বেগম খালেদা জিয়ার নিরাপত্তায় নিয়োজিত পুলিশের যে টিম দীর্ঘদিন থেকে দায়িত্ব পালন করতো তাদের পরিবর্তন করে দেয়া হয়েছে।মঙ্গলবার থেকে পুলিশের নতুন একটি টিম দায়িত্ব পালন করছেন।